1. info@voicectg.com : Voice Ctg :
সোমবার, ২৩ মে ২০২২, ০৮:০৬ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
রোহিঙ্গা ক্যাম্পে পুলিশের অভিযানে দেশীয় অস্ত্র ও ইয়াবাসহ আটক ২ – ভয়েস চট্টগ্রাম ন্যাটো-রাশিয়া পারমাণবিক যুদ্ধে প্রথম ঘণ্টায় যা হতে পারে। কক্সবাজারে স্বামী-স্ত্রী পরিচয় দিয়ে হোটেলে ওঠা তরুণীর মৃত্যু। আকাশে ওড়ার ১৫ মিনিটের মাথায় নভোএয়ারের জরুরি অবতরণ। এবার ঘুমধুমের টমটম চালক আনিসের ঝুড়িতে মিললো ৬১১২ পিস ইয়াবা। ১৭ মে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও গণতন্ত্রের অগ্নিবীণার প্রত্যাবর্তন দিবস -তথ্যমন্ত্রী। বান্দরবান সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাবরিনা আফরিন মুস্তাফার বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত। আওয়ামীলীগের মাঠজরীপে আছহাব উদ্দিন মেম্বার আবারো জনপ্রিয়তার শীর্ষে। মেয়ে তুমি জম্মেই অভিশপ্ত – লেখক: বীর মুক্তিযোদ্ধা ডাঃ কাজল দাশ, সম্পাদক ভয়েস চট্টগ্রাম উখিয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ইয়াবাসহ এক নারী মাদককারবারি আটক।

কক্সবাজারে শ্রমিক লীগ সভাপতি জহিরুল ইসলাম হত্যার আসামি তাহের সিকদার গ্রেফতার।

কক্সবাজার প্রতিনিধিঃ
  • প্রকাশিত: সোমবার, ২৯ নভেম্বর, ২০২১

কক্সবাজার প্রতিনিধি:

কক্সবাজার সদরের লিংকরোডে দূর্বৃত্তরা গুলি করে জেলা জাতীয় শ্রমিক লীগের সভাপতি জহিরুল ইসলাম সিকদারকে হত্যার এজাহারভূক্ত আসামি ছাত্র শিবিরের সাবেক নেতা আবু তাহের সিকদারকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।
এ নিয়ে জহিরুল ইসলাম হত্যা মামলায় ছাত্র শিবিরের সাবেক দুই নেতা গ্রেপ্তার হল।

শনিবার মধ্যরাতে ঢাকার তোপখানা রোডের আবাসিক এক হোটেলে এ অভিযান চালানো হয় বলে জানান কক্সবাজার সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) বিপুল চন্দ্র দে।

গ্রেপ্তার আবু তাহের সিকদার ওরফে তাহের সিকদার (৪৮) ছাত্র শিবিরের কক্সবাজার জেলা শাখার সাবেক নেতা ও কক্সবাজার সরকারি কলেজ ছাত্র সংসদের ‘ছাত্র শিবির মনোনীত প্যানেলের’ সাবেক সদস্য। তিনি পেশায় আইনজীবী এবং কক্সবাজার জেলা আইনজীবী সমিতির সদস্য।

পুলিশ জানিয়েছে, গ্রেপ্তার আবু তাহের সিকদার শ্রমিক লীগ নেতা জহিরুল ইসলাম সিকদার হত্যা মামলার এজাহারভূক্ত দুই নম্বর আসামি।

গত ৫ নভেম্বর রাত সাড়ে ১০ টায় কক্সবাজার সদরের লিংকরোড স্টেশনে ঝিলংজা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও তার ছোট ভাই কুদরত উল্লাহ সিকদারের ব্যক্তিগত অফিসে অবস্থান করছিলেন। তারা দুই ভাইসহ কর্মি-সমর্থকদের সঙ্গে নির্বাচনী আলাপ করছিলেন।

এসময় একদল দূর্বৃত্ত মোটর সাইকেল যোগে এসে তাদের লক্ষ্য গুলি ছুড়ে এবং কুপিয়ে জখম করে। এতে ৩ জন গুলিবিদ্ধ হন। পরে স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নিয়ে। আহতদের মধ্যে কুদরত উল্লাহ’র অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় ওইদিন রাতে চিকিৎসকরা তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন। গত ৬ নভেম্বর সকালে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি থাকা জহিরুল ইসলামের অবস্থাও আশংকাজনক হওয়ায় তাকে চিকিৎসকরা চমেকে প্রেরণ করেন। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত ৭ নভেম্বর দুপুরে তার মৃত্যু হয়।

কুদরত উল্লাহ গত ১১ নভেম্বর অনুষ্টিত ইউপি নির্বাচনে ঝিলংজা ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য পদে জয়ী হয়েছেন।

নিহতের স্বজনদের অভিযোগ ছিল, ইউপি নির্বাচনে স্থানীয় প্রতিদ্বন্ধি প্রার্থী লিয়াকত আলীর নেতৃত্বে দূর্বৃত্তরা এ হামলা চালিয়েছে।

এ ঘটনায় গত ৯ নভেম্বর হামলায় আহত কুদরত উল্লাহ সিকদার বাদী হয়ে ১৯ জনের নাম উল্লেখ করে ২১ জনকে আসামি করে কক্সবাজার সদর থানায় মামলা দায়ের করেন।

এর আগে গত ১১ নভেম্বর মধ্যরাতে কক্সবাজার শহরের নুর পাড়া থেকে শ্রমিক লীগ নেতা জহিরুল ইসলাম হত্যার ঘটনায় জড়িত সন্দেহে সাবেক শিবির নেতা ও সাংবাদিক ইমাম খাইরকে গ্রেপ্তার করে র‍্যাব।

পরিদর্শক বিপুল বলেন, কক্সবাজার সদরে শ্রমিক লীগ নেতা জহিরুল ইসলাম সিকদারের চাঞ্চল্যকর হত্যার ঘটনার পর থেকে জড়িত আসামিদের গ্রেপ্তারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত ছিল। শনিবার মধ্যরাতে মামলার এজাহারভূক্ত এক আসামি ঢাকার তোপখানা রোডের আবাসিক একটি হোটেলে অবস্থান করছে খবরে পুলিশের একটি দল অভিযান চালায়। এতে হোটেল কক্ষে অবস্থানকালে এজাহারভূক্ত এক আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তার তাহের সিকদার শ্রমিক নেতা জহিরুল ইসলাম হত্যা মামলার এজাহারভূক্ত দুই নম্বর আসামি। ঘটনায় মামলা দায়েরের পর থেকে সে পলাতক ছিল। ”

পরিদর্শক (তদন্ত) জানান, আসামিকে রোববার দুপুরে ঢাকা থেকে কক্সবাজার নিয়ে আসা হয়েছে এবং তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হবে।

গ্রেপ্তার আসামিকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আদালতে রিমান্ড আবেদন করা হবে বলে জানান তিনি।

আরো সংবাদ পড়ুন

ওয়েবসাইট নকশা প্রযুক্তি সহায়তায়: ইয়োলো হোস্ট

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত